রবিবার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৫ মাঘ ১৪২৯ , ৭ রজব ১৪৪৪

খেলা

মাশরাফির কাছে আবারও হারলেন সাকিব

স্পোর্টস রিপোর্টার জানুয়ারী ২৪, ২০২৩, ১৭:৫৮:১৪

136
  • ৮৯ রানের পথে শান্ত'র একটি শট। ছবি-ইন্টারনেট

সিলেট স্ট্রাইকার্স : ১৭৩/৫ (২০.০ ওভারে)

ফরচুন বরিশাল : ১৭১/৮ (২০.০ ওভারে)

ফল: সিলেট স্ট্রাইকার্স ২ রানে জয়ী।

প্লেয়ার অব দ্য ম্যাচ : নাজমুল হোসেন শান্ত (সিলেট স্ট্রাইকার্স)।

১৭৪রানের লক্ষ্যটা এক পর্যায়ে অনতিক্রমযোগ্য মনে হয়নি। ১৮তম ওভারে তানজিম হাসান সাকিব ১৮ রান খরচা করায় শেষ ১২ বলে ২৩ রানের টার্গেট পাড়ি দেয়ার স্বপ্ন দেখেছে ফরচুন বরিশাল।

তবে ১৯তম ওভারে আমিরের হাতে বল তুলে দিয়ে ম্যাচটা ফিরিয়ে এনেছেন মাশরাফি। ওই ওভারের ৫ম বলে মাহমুদউল্লাহ ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্টে ক্যাচ দিলে শেষ ৬ বলে ১৫ রানের লক্ষ্যটা কঠিন করে দেন তরুণ পেসার রেজাউর রহমান রাজা।

ওই ওভারের প্রথম দুই বলে ইফতখার লং অফে এবং মিরাজ রান আউটে কাঁটা পড়লে শেষ ২ বলে ওয়াসিমের ছক্কা-চার-এ বাড়িয়েছে আফসোস। চলমান বিপিএলে মাশরাফির সঙ্গে সাকিবের লড়াইয়ে মাশরাফি এগিয়ে গেলেন ২-০তে।

প্রথম দেখায় ৬ উইকেটে জয়ের পর ফিরতি দেখায় শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে ২ রানে জিতে পয়েন্ট তালিকায় এককভাবে শীর্ষে থাকলো সিলেট স্ট্রাইকার্স (৭ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট)। ফরচুন বরিশাল নেমে গেল ২ নম্বরে (৭ ম্যাচে ১০ পয়েন্ট)। 

এই ম্যাচে মোহাম্মদ ওয়াসিমের প্রথম ওভারে চোখে সরষের ফুল দেখেছে সিলেট স্ট্রাইকার্স। জাকিরকে (০)ইনসুইং ডেলিভারিতে বোল্ড আউট দিয়ে শুরু ওই ওভারে তৌহিদ হৃদয়কে (৪) ডিপ ফাইন লেগ এবং মুশফিকুর রহিমকে এলবিডাব্লুউ (০) গোল্ডেন ডাক-এর লজ্জা দিয়েও ফরচুন বরিশাল ইনিংস শেষে স্বস্তির নিশ্বাস ফেলতে পারেনি। ব্যাটিং পাওয়ার প্লে-এর দুর্যোগ (৪১/৩) কাটিয়ে চ্যালেঞ্জিং পুঁজি (১৭৩/৫) পেয়েছে সিলেট।

শুরু থেকে এক এন্ডে ছিলেন শান্ত নির্ভার। চতুর্থ উইকেট জুটিতে মুরসের সঙ্গে ৭৭ বলে ৮১ এবং ৫ম উইকেট জুটিতে থিসারার সঙ্গে ৩৪ বলে ৬৮ রানের পার্টনারশিপে দিয়েছেন শান্ত নেতৃত্ব। ৪৮ বলে হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করে ছিলেন শান্ত ৮৯ রানে নট আউট। ৬৬ বলে ১১ চার, ১ ছক্কায় ইনিংসটা টেনে নিয়েছেন ৮৯* পর্যন্ত। ফিফটির পর ব্যাটটা করেছেন চওড়া। ১৬তম ওভারে খালেদকে ২টি, ১৮তম ওভারে কামরুল ইসলাম রাব্বীকে ৩টি বাউন্ডারি মেরেছেন। শেষ ৩৯ রান করেছেন ১৮ বলে!

শান্ত'র ব্যাটিংয়ে উদ্বুদ্ধ ইংলিশ ক্রিকেটার মুরস ৩০ বলে ৪ চার ১ ছক্কায় করেছেন ৪০। সাকিবের দ্বিতীয় স্পেলের ৫ম বলে ডাউন দ্য উইকেটে খেলতে যেয়ে হয়েছেন এলবিডাব্লুউ। শেষ ওভারে কামরুল ইসলাম রাব্বীকে ডিপ পয়েন্টে ক্যাচ দেয়ার আগে থিসারা পেরেরা করেছেন ১৬ বলে ২১।

পাকিস্তান পেসার মোহাম্মদ ওয়াসিমের প্রথম স্পেলটি বাদ দিলে সিলেট স্ট্রাইকার্সকে চাপে ফেলতে পারেনি ফরচুন বরিশাল। প্রথম ওভারে ৫ রানে তিন উইকেট পাওয়া এই পেসার উইকেটহীন পরের তিন ওভারে খরচা করেছেন ২৯ রান। করিম জানাত ৩ ওভারে ২৮ রান করেছেন খরচা। ২ ওভারে ১ উইকেটের বিপরীতে কামরুল ইসলাম রাব্বীর খরচা ২৮। সাকিব বোলিং কোটা পূরণ করেননি (২-০-১১-১)।

শেষ পাওয়ার প্লে-তে ফরচুন বরিশাল বোলারদের উপর চড়াও হয়েছেন শান্ত-থিসারা। যোগ করেছেন এই ৩০ বলে ৬৩ রান।

১৭৪ রানের চ্যালেঞ্জ ব্যাট করতে নেমে এদিন ব্যাটে ঝড় তুলেছিলেন প্রথমবারের মতো চলমান  আসরে খেলার সুযোগ পাওয়া সাইফ হাসান।দ্বিতীয় ওভারে মাশরাফিকে ছক্কা দিয়ে শুরু করেছেন, ৪র্থ ওভারে সেই মাশরাফিকে মেরেছেন ২টি ছক্কা। ১৯ বরে ৪ ছক্কায় ৩১ রানের ঝড়ো ইনিংস শেষে সাইফকে থামিয়েছেন বিপিএলে প্রথম সুযোগ পাওয়া পেস বোলার তানজীম হাসান সাকিব।

উইকেটের পেছনে দিয়েছেন সাইফ ক্যাচ। ২৯ বলে ৪২ রানের এই পার্টনারশিপ ভেঙ্গে যাওয়ার পরও ম্যাচে ছিল ফরচুন বরিশাল। তৃতীয় উইকেট জুটিতে সাকিব-জাদরানের ৪৫ বলে ৬১ রানে জয়ের কক্ষপথেই ছিল বরিশাল। সিলেট স্ট্রাইকার্স ইনিংসে টার্নিং পয়েন্ট রেজাউর রহমান রাজার দ্বিতীয় স্পেল (১-০-১-২)।

প্রথম স্পেলে মার খেয়ে (২-০-২৮-০) দ্বিতীয় স্পেলে ইব্রাহিম জাদরান (৩৭ বলে ৪ চার, ২ ছক্কায় ৪২) এবং সাকিব (১৮ বরে ৩ চার, ১ ছক্কায় ২৯) বোল্ড হন তার বলে। শেষ ৩০ বলে ৬৩ রানের চ্যালেঞ্জটা প্রায় সহজ করে ফেলেছিল ফরচুন বরিশাল ১৬তম ওভারে মাশরাফিকে করিম জানাত ৩টি ছক্কা মেরে। ১৮তম ওভারে তানজিব হাসান সাকিবের বলে ১ চার, ২ ছক্বায় ১৮ রান খরচায়ও ম্যাচটা হাতের মুঠোয় প্রায় নিয়েছিল বরিশাল। তবে শেষ অঙ্কে হেরেছে তারা।

অভিজ্ঞ পেসার মোহাম্মদ আমিরের দ্বিতীয় স্পেল (২-০-৯-২) গড়ে দিয়েছে ব্যবধান। প্রথম স্পেলে মার খেয়ে (২-০-২৮-০) ডেথ ওভারের ২ স্পেলে ( ১-০১-২ ও ১-০-১২-১) ম্যাচ উইনার তরুণ পেসার রেজাউর রহমান রাজা (৩/৪১)। উইকেট না পেয়েও মিতব্যয়ী বোলিং করেছেন ইমাদ ওয়াসিম (৪-০-১৩-০)। তবে খরুচে বোলিং করেছেন এদিন মাশরাফি (৩-০-৪২-০)।

পাঠকের মন্তব্য

লগইন করুন

ইউজার নেম / ইমেইল
পাসওয়ার্ড
নতুন একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করতে এখানে ক্লিক করুন