মঙ্গলবার, ২৩ জানুয়ারি ২০১৮, , ৫ জুমাদিউল আউয়াল ১৪৩৯

খেলা

হাথুরুসিংহেকে মাশরাফির স্যালুট

শামীম চৌধুরী জানুয়ারী ১৪, ২০১৮, ১৭:২৬:২৬

  • ছবি: ইন্টারনেট থেকে

ঢাকা: সাবেক হেড কোচ হাথুরুসিংহের সঙ্গে দারুন একটা জুটি গড়ে উঠেছিল ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফির। বাংলাদেশ দল ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ে ৯ থেকে ৭ এ উঠে এসেছে, তা মাঠের বাইরে হাথুরুসিংহের পরিকল্পনা এবং মাঠে মাশরাফির নেতৃত্বগুনে। আইসিসি’র চ্যালেঞ্জ নিয়ে ২০১৭ সালে অনুষ্ঠিত ৮ দলের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে বাংলাদেশ করেছে কোয়ালিফাই, এবং ১১ বছর পর আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে বাংলাদেশ প্রত্যাবর্তনেই সেমিফাইনালে উঠে বাংলাদেশ দল করেছে অসাধ্য সাধন, তা এই জুটির মাঠের ভেতরে,বাইরের দারুন সমন্বয়ে। বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দল কোয়ার্টার ফাইনালে খেলে করেছে ইতিহাস রচনা, ১০ দলের ২০১৯ বিশ্বকাপে চূড়ান্ত পর্বে জায়গা করে নিয়েছে, সেখানেও এই কম্বিনেশনকে দিতে হচ্ছে হাততালি। পাকিস্তান,ভারত,দক্ষিন আফ্রিকাকে ওয়ানডে সিরিজ হারিয়ে বাংলাদেশের বিস্ময়কর সাফল্যের নেপথ্যেও উচ্চারিত হবে হাতুরু-মাশরাফির নাম। ক্যাপ্টেনসির দ্বিতীয় অধ্যায়ে মাশরাফির নেতৃত্বে ৫২ ওয়ানডে ম্যাচে ২৫টিতে জিতেছে, এই অধ্যায়ের পুরোটাতেই ছিলেন হাথুরুসিংহে হেড কোচের ভুমিকায়।

ড্রেসিং রুমে এবং অনুশীলন মাঠে বাংলাদেশ দলের গেম প্লানে একজন ছিলেন অন্যজনের পরিপূরক। জুটিটা বিচ্ছিন্ন হয়েছে ৩ মাস আগে। বাংলাদেশ দলের হেড কোচের দায়িত্ব ছেড়ে দিয়ে হাতুরুসিংহে এখন শ্রীলংকার হেড কোচ। মাশরাফিদের নিয়ে এতোদিন পরিকল্পনা ছিল যার, সেই হাথুরুসিংহে এখন বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ। তারপরও হাথুরুসিংহের প্রতি কৃতজ্ঞ মাশরাফি। বাংলাদেশ দলকে এভারেস্ট উচ্চতায় তোলার কারিগর হাথুরুসিংহকে স্যালুট দিয়েছেন মাশরাফি-‘ বাংলাদেশের ড্রেসিং রুমে  এখন যারা আছেন, তারা অনেক বড় মানসিকতা নিয়ে এখন ঘুরছে। খেলোয়াড়দের পক্ষ থেকে আমি হাথুরুসিংহকে স্যালুট জানাই। অবশ্যই তার অধীনে খেলে আমরা ভালো ফল পেয়েছি। তাই কৃতিত্ব তাকে দিতে আমাদের বিন্দুমাত্র সংকোচ নেই।’

তবে হাথুরুর পাশে বাংলাদেশের সফল অধ্যায়ে কৃতিত্ব দিতে হবে পারফরমারদেরও। তা বলতে দ্বিধা নেই মাশরাফির-‘  আমাদের তামিমের রেকর্ড, মুশফিকের গত বছরে রেকর্ড কিংবা সাকিবের ম্যাক্সিমাম ক্যারিয়ার,মুস্তাফিজের রেকর্ড যদি দেখেন তাহলে বলতে হবে কোচ তাদেরকে বিশেষ কিছু করে দেয়নি। তাদের নিজেদের এটা করে নিতে হয়েছে। চবাপটা তাদের নিতে হয়েছে। মাহমুদউল্লাহ  রিয়াদ যখন নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করলো,  তখন আমার কাছে মনে হয়নি কেউ ওখানে গিয়ে তাদেরকে আলাদা করে ধরে খেলিয়ে দিয়ে আসছে।’ পেশাদার ক্রিকেটে কোচ একটা অংশ হলে খেলোয়াড়রাও আর একটি

অংশ। দায়িত্বটা একে অপরের পরিপূরক। তারপরও হাথুরুসিংহের নুতন অধ্যায়ের শুভকামনা করেছেন মাশরাফি-‘ কোচ যে ই থাকুক না কেন, তাকে শতভাগ আমরা ব্যাক করেছি। এটা  বলতে আমাদের  দ্বিধা নেই। এখন যারা কোচিং স্টাফে আছেন, হ্যালসাল, সুজন ভাই, আমরা ওনাদেরকেও  শতভাগ ব্যাক আপ দেওয়ার চেষ্টা করবো। অবশ্যই পেশাদারিত্ব দেখিয়ে সবকিছু চলবে। এবং চলছে। গুড লাক টু হাথুরু।’ 

পাঠকের মন্তব্য

লগইন করুন

ইউজার নেম / ইমেইল
পাসওয়ার্ড
নতুন একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করতে এখানে ক্লিক করুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

copyright © 2016 newsg24.com | A G-Series Company
Developed by Creativeers